পদ্মা সেতু খুলে দেওয়ায় দুর্ভোগ বিহীন পাটুরিয়া

রুহুল আমিন, জেলা প্রতিনিধি মানিকগঞ্জ।।
দুইদিন আগেও লোকজনের ভিড়ে মুখরিত ছিল পটুরিয়া ঘাট। যানবাহন ঘণ্টা পর ঘণ্টা অপেক্ষা করে ফেরিতে উঠে নদী পার হচ্ছিল। পদ্মা সেতু খুলে দেওয়ায় সেই ঘাটের চেহারা বদলে গেছে। নেই ভীড়-ব্যস্ততা, অনেকটাই ফাঁকা এখন ঘাট এলাকা। এখন গাড়ির অপেক্ষায় থাকে ফেরি। চালক ও যাত্রীরা দুর্ভোগ বিহীন স্বস্তিতে পারাপার হচ্ছেন। তাদের মুখে শান্তির হাসি।

রোববার (২৬ জুন) সকাল থেকে বিকেল পযন্ত পাটুরিয়া ঘাট এলাকায় এমন চিত্র দেখা গেছে।

হামিদুর রহমান নামের এক যাত্রী বলেন, পটুরিয়া ঘাট এলাকা ফাঁকা। গাড়ি ঘাট এলাকায় এসে টিকিট কেটে সরাসরি ফেরিতে উঠেছে। দুর্ভোগ ছাড়াই ফেরি পার হতে পারছি।

তিনি বলেন, আমি ঢাকায় চাকরি করি। প্রতি মাসেই একবার করে কুষ্টিয়া আমার বাড়ি যাই। ঘাট এলাকায় এসে ঘণ্টার পর ঘন্টা অপেক্ষা করে ফেরিতে উঠে নদী পার হতে হত। আজ দুর্ভোগ বিহীন শান্তিতে পার হতে পারছি।

চালক মহসিন হোসেন বলেন, বিকেলের দিকে পারাপারের জন্য ঘাট এলাকায় যানবাহনের লম্বা সারি থাকত। আজ ঘাট এলাকায় সেটা নেই। ঘাট এলাকায় আগের মত ব্যস্ততাও নেই।

বিআইডব্লিউটিসির অরিচা অফিসের উপমহাব্যবস্থাপক শাহ মুহাম্মদ খালিদ নেওয়াজ বলেন, পদ্মা ব্রীজ উদ্বোধন করার কারণে পাটুরিয়া ঘাটে কিছুটা প্রভাব পড়েছে। সকাল থেকেই যানবাহনের জন্য ফেরি অপেক্ষায় রয়েছে। যাত্রীবাহী বাস, ট্রাক আগেরচেয়ে কিছুটা কম পারাপার হলোও ছোট গাড়ি একেবারে কমে গেছে। এই নৌ-রুটে ২০টি ফেরি দিয়ে যানবাহন পারাপার করা হচ্ছে। আজ সকাল ৬টা থেকে দুপুর পর্যন্ত যাত্রীবাহী বাস, ট্রাক, ছোট গাড়ি মিলে ৭শ ৪টি যানবাহন পারাপার হয়েছে।

তিনি বলেন, অনেকেই পদ্মা ব্রীজ দেখতে অনন্দে মেতে ওই রোড দিয়ে যাচ্ছেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *